রবিবার, ২২ মে ২০২২, ১০:১৮ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ শিরোনামঃ
বিএনপি আমলের নির্বাচন এতটাই কলুষিত যে এ নিয়ে তাদের কথা বলার কোন অধিকার নেই : প্রধানমন্ত্রী পদ্মা সেতুর টোল হার নির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন দিনাজপুরে লিচুর বাম্পার ফলন : গাছে গাছে ঝুলছে পাকা লিচু কাঁদতে কাঁদতে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে প্রধানমন্ত্রী:, “ভাবলাম দেশের কাছে যাই, কখনও শুনি মা বেঁচে আছে, দুর্ভাগ্য! ষড়যন্ত্রে দলের লোকরাও ছিল” ১৭ মে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও গণতন্ত্রের অগ্নিবীণার প্রত্যাবর্তন দিবস : তথ্যমন্ত্রী সব বাধা পেরিয়ে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এগিয়ে যেতে হবে : ওবায়দুল কাদের ২ লাখ ৪৬ হাজার কোটি টাকার নতুন এডিপি অনুমোদন শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপিত দেশরত্ন শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে “বাংলাদেশ ছাত্রলীগ” এর আনন্দ শোভাযাত্রা দেশের মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে দেশে ফিরেছিলাম : প্রধানমন্ত্রী মারিউপুল স্টিলওয়াকর্স থেকে ইউক্রেনীয় সেনাদের সরিয়ে নেয়া হয়েছে পল্লবী, সুশান্তের মতোই অবসাদে ভুগছে টলিপাড়া? মতামতে সুমন, অনুত্তমা, দিয়া পি কে হালদারের রুল শুনানি হাইকোর্টের কার্য তালিকায় শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ ‘ক্যাসিনো সম্রাটের’ জামিন বাতিল চেয়ে হাইকোর্টে দুদকের আবেদন এবার আধা ঘণ্টার মধ্যেই বৃষ্টির পানি নিষ্কাষিত হবে : মেয়র তাপস টানা ২৬ দিন করোনায় মৃত্যু শূন্য দেশ প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে চলচ্চিত্র নির্মাতা গৌতম ঘোষের সাক্ষাৎ শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন বাংলাদেশের গণতন্ত্রের ইতিহাসে একটি মাইলফলক : রাষ্ট্রপতি ন্যায্য মূল্য নিশ্চিত করতে কৃষকদের কাছ থেকে ধান কেনা হচ্ছে: খাদ্যমন্ত্রী

বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণই ছিলো স্বাধীনতা অর্জনের পথ নির্দেশনা : আমু

  • সর্বশেষ আপডেট : শুক্রবার, ১১ মার্চ, ২০২২
  • ১৯
| ছবি: সংগৃহীত

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য এবং কেন্দ্রীয় ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু বলেছেন, “বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণই ছিলো স্বাধীনতার ঘোষণা ও স্বাধীনতা অর্জনের পথ নির্দেশনা।”


আজ শুক্রবার ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষ্যে ১৪ দলের আয়োজনে এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
আমির হোসেন আমু বলেন, এই ভাষণ শুধু জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনেরই নয়, ইউনেস্কো স্বীকৃত বিশ্বের শ্রেষ্ঠ ভাষণের মধ্যে অন্যতম।
তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু তাঁর এই ভাষণের মধ্য দিয়ে একদিকে পাকিস্তানের ২৩ বছরের শাসন, শোষণ, নির্যাতন, নীপিড়ন, বঞ্চনার ইতিহাস তুলে ধরে অসহযোগ আন্দোলনের ডাক দিলেন, অন্যদিকে  শোষণের হাত থেকে বাঙালিকে মুক্তির পথ নির্দেশনা দিয়ে মুক্তিযুদ্ধের প্রস্তুতি ও গেরিলা যুদ্ধের রূপরেখা তুলে ধরেন।
তিনি বলেন, ‘৭ মার্চ আজ শুধু বাংলাদেশের সম্পদ নয় , ইউনেস্কোর বিশ্ব প্রামাণ্য  ঐতিহ্যের স্বীকৃতিসহ সারা বিশ্ববাসীর কাছে শ্রেষ্ঠ ভাষণের মর্যাদা পেয়েছে। আর যারা বঙ্গবন্ধু হত্যার পর রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় এসে ৭ই মার্চের ভাষণ বাজাতে দেয়নি, তারা আজ ইতিহাসের আস্তাকুঁড়ে নিক্ষিপ্ত হয়েছে।’
আলোচনা সভায় আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম  সদস্য  মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া বীর বিক্রম, অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম,  জাতীয় পার্টির(জেপি) সাধারণ সম্পাদক শেখ শহীদুল ইসলাম, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) সাধারণ সম্পাদক শিরিন আক্তার, বাংলাদেশ  গণ আজাদী লীগের সভাপতি  এস কে সিকদার, বাসদের আহবায়ক রেজাউর রশীদ খান, গণতন্ত্রী পার্টির সাধারণ সম্পাদক ডা. শাহাদাত হোসেনসহ ১৪ দলের নেতারা বক্তব্য রাখেন । আওয়ামী লীগের  মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক  মৃনাল কান্তি দাস অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন।

শেয়ার করুন

আরও খবর

মুজিববর্ষ সম্পর্কে জানতে নিচে ক্লিক করুন