ঢাকা, বাংলাদেশ | সময়ঃ ৪:২৪ পূর্বাহ্ণ
আজ শুক্রবার, ৭ মে, ২০২১
জাতীয় পার্টির এ নারী সংসদ সদস্য রওশন আরা মান্নান এমপি
অনলাইন ডেস্ক
অনলাইন ডেস্ক
Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin
ছবি: সংগৃহীত

সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকা নিয়ে বিদেশে পালিয়ে যাওয়া পিকে হালদারকে ধরে আনার দাবি উঠেছে জাতীয় সংসদে। সংসদের বিরোধী দলীয় হুইপ অধ্যক্ষ রওশন আরা মান্নান এমপি বলেছেন, অর্থনৈতিক অবস্থা যত ভালো হচ্ছে দুর্নীতিও তত বেড়ে যাচ্ছে। এটা কঠোরভাবে দমন করতে হবে। 

 

তিনি বলেন, বাংলাদেশে আর কয়জন পিকে হালদার আছে, দুর্নীতি দমন বিভাগকে তাদের খোঁজে বের করতে হবে। 

মঙ্গলবার সংসদে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

জাতীয় পার্টির এ নারী সংসদ সদস্য আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করবো, কানাডায় থাকা পিকে হালদারকে যেভাবেই হোক ধরে এনে তাকে এই দেশে যেন কঠোর শাস্তি দেয়া হয়। কারণ, এত টাকা নিয়ে যদি বাইরে চলে যেতে পারে, তাও আবার বান্ধবীদেরকে নিয়ে। তাকে যদি আনা না হয় এবং শাস্তি না দেয়া হয় তাহলে ভবিষ্যতে উদাহরণ হয়ে থাকবে, অনেকেই এভাবে বিদেশে টাকা নিয়ে চলে যাবে। 

তিনি বলেন, অনেক মেয়ে পিকে হালদারের বান্ধবী হতে না পেরে আফসোস করছে। কারণ তারা (পিকে হালদারের বান্ধবীরা) এত (পরিমাণ) টাকা পেয়েছে।

রওশন আরা মান্নান এমপি বলেন, হলমার্কের এমডি কাশিমপুর জেলখানায় তার বান্ধবীকে নিয়ে যেভাবে ফ্রিলি ঘুরাফেরা করছে, মনে হয় যেন একটা বিয়ে বাড়ি। এগুলো বন্ধ করতে হবে। সে টাকা দিয়ে হাজার হাজার লক্ষ লক্ষ টাকা খরচ করে এগুলো সেখানে আয়োজন করেছে। আর এই টাকাগুলো যদি তার নিজের হতো, তাও একটা কথা ছিল। এই টাকাগুলো ব্যাংকের লোন, ব্যাংকের কোটি কোটি টাকা নিয়ে তারা এভাবে বান্ধবীদের পেছনে খরচ করছে। এর সুষ্ঠু বিচার হওয়া দরকার। এগুলো বন্ধ না হলে ব্যাংকের দুর্নীতিও বন্ধ হবে না, মানুষের দুর্নীতিও কমবে না।